ঢাকা ০৩:৫২ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
প্রতারণার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী ও তার স্বামী রিমান্ডে শাহজালালে যৌথ অভিযানে ২ কেজি ১০৪ গ্রাম স্বর্ণ উদ্ধার, গ্রেফতার ৪ যাত্রী গোসাইরহাট উপজেলা পরিষদের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী জাতীয় যুব কাউন্সিলের সভাপতি:মাসুদ আলম ইয়াংছা উচ্চ বিদ্যালয়ে মহান আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত রামেবিতে যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন যুবলীগ নেতার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী গ্রেফতার! ৪ মামলায় সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামি’কে ঢাকা থেকে গ্রেফতার করেছে দাগনভূঁঞা থানা পুলিশ দূর্নীতিমুক্ত রিহ‍্যাব গড়তে চান আলিমুল্লাহ খোকন টিলাগাঁও আজিজুন নেছা উচ্চ বিদ্যালয়ের তৃতীয় বারের মত সভাপতি নির্বাচিত শামিম আহমদ ‘কমান্ডার খন্দকার আল মঈন এর ‘কিশোর গ্যাং-কীভাবে এলো, কীভাবে রুখবো’দুইটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন

বিপুল পরিমান চোরাই ক্যাবলসহ চোরচক্রের মূলহোতা মাসুম’কে আটক করছে র‍্যাব-৪

  • মাসুদ রানা
  • আপডেট সময় : ১০:২৪:৩৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৫ মার্চ ২০২৩
  • ২১৭৫ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদ নির্মূল ও মাদকবিরোধী অভিযানের পাশাপাশি খুন, চাঁদাবাজি, চুরি, ডাকাতি ও ছিনতাই চক্রের সাথে জড়িত বিভিন্ন সংঘবদ্ধ ও সক্রিয় সন্ত্রাসী বাহিনীর সদস্যদের গ্রেফতার করে সাধারণ জনগণের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বিনির্মাণের লক্ষ্যে র‍্যাব-৪ জোড়ালো তৎপরতা অব্যাহত আছে।

এরই ধারাবাহিকতায় ১৫ মার্চ ২৩ ইং ঢাকা জেলার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ এলাকার একটি টিনসেট গোডাউনের ভিতর কিছু সংঘবদ্ধ বৈদ্যুতিক তার চোরাকারবারী চক্রের সদস্য চোরাইকৃত বৈদ্যুতিক তার/ ওয়্যারড ক্যাবল ক্রয়-বিক্রয়ের উদ্দেশ্যে অবস্থান করছে বলে তথ্য আসে।

উক্ত গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অদ্য ১৫ মার্চ ২০২৩ র‍্যাব-৪ এর একটি অভিযানিক দল দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানাধীন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে চোরাইকৃত ২৫০০ (দুই হাজার পাঁচশত) কেজি বৈদ্যুতিক তার ও ২ টি খোলা বৈদ্যুতিক তারের ড্রামসহ সংঘবদ্ধ চোরাকারবারী চক্রের মূলহোতাসহ নিম্নোক্ত ২ জন সদস্য’কে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।গ্রফতারকৃতরা হলেন,মোঃ মাসুম (৪০) ও মোঃ কবির (৫০)।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা জানান বৈদ্যুতিক তার চুরির বিষয়ে সত্যতা স্বীকার করে। জিজ্ঞাসাবাদে আরো জানা যায় যে, ধৃত আসামীদ্বয় সেই সাথে পলাতক এবং অজ্ঞাতনামা আরো ২/৩ জন আসামীদের পরস্পর যোগসাজোসে সরকারী/বেসরকারী বৈদ্যুতিক তার অবৈধভাবে চুরি করে তাদের গোপন গোডাউনে মজুদ করে। পরবর্তীতে সুকৌশলে রাতের আধাঁরে লোকচক্ষুর অন্তরালে সুবিধাজনক ও বহনযোগ্য সাইজে রুপান্তর করে ঢাকা জেলা ও রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে কৌশলে বিক্রয় করে থাকে বলে স্বীকারোক্তি প্রদান করে। তাদের এই চুরির ফলে দেশের বিভিন্ন সরকারী/ বেসরকারী বিদ্যুৎ উৎপাদন ও বিপণনকারী প্রতিষ্ঠান তথা বিদ্যুৎশিল্প চরম ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে। উপরোক্ত বিষয়ে আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন। অদূর ভবিষ্যতে এরূপ সংঘবদ্ধ চোরাকারবারী দলের বিরুদ্ধে র‍্যাব-৪ এর জোড়ালো অভিযান অব্যাহত থাকবে।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

প্রতারণার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী ও তার স্বামী রিমান্ডে

বিপুল পরিমান চোরাই ক্যাবলসহ চোরচক্রের মূলহোতা মাসুম’কে আটক করছে র‍্যাব-৪

আপডেট সময় : ১০:২৪:৩৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৫ মার্চ ২০২৩

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদ নির্মূল ও মাদকবিরোধী অভিযানের পাশাপাশি খুন, চাঁদাবাজি, চুরি, ডাকাতি ও ছিনতাই চক্রের সাথে জড়িত বিভিন্ন সংঘবদ্ধ ও সক্রিয় সন্ত্রাসী বাহিনীর সদস্যদের গ্রেফতার করে সাধারণ জনগণের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বিনির্মাণের লক্ষ্যে র‍্যাব-৪ জোড়ালো তৎপরতা অব্যাহত আছে।

এরই ধারাবাহিকতায় ১৫ মার্চ ২৩ ইং ঢাকা জেলার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ এলাকার একটি টিনসেট গোডাউনের ভিতর কিছু সংঘবদ্ধ বৈদ্যুতিক তার চোরাকারবারী চক্রের সদস্য চোরাইকৃত বৈদ্যুতিক তার/ ওয়্যারড ক্যাবল ক্রয়-বিক্রয়ের উদ্দেশ্যে অবস্থান করছে বলে তথ্য আসে।

উক্ত গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অদ্য ১৫ মার্চ ২০২৩ র‍্যাব-৪ এর একটি অভিযানিক দল দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানাধীন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে চোরাইকৃত ২৫০০ (দুই হাজার পাঁচশত) কেজি বৈদ্যুতিক তার ও ২ টি খোলা বৈদ্যুতিক তারের ড্রামসহ সংঘবদ্ধ চোরাকারবারী চক্রের মূলহোতাসহ নিম্নোক্ত ২ জন সদস্য’কে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।গ্রফতারকৃতরা হলেন,মোঃ মাসুম (৪০) ও মোঃ কবির (৫০)।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা জানান বৈদ্যুতিক তার চুরির বিষয়ে সত্যতা স্বীকার করে। জিজ্ঞাসাবাদে আরো জানা যায় যে, ধৃত আসামীদ্বয় সেই সাথে পলাতক এবং অজ্ঞাতনামা আরো ২/৩ জন আসামীদের পরস্পর যোগসাজোসে সরকারী/বেসরকারী বৈদ্যুতিক তার অবৈধভাবে চুরি করে তাদের গোপন গোডাউনে মজুদ করে। পরবর্তীতে সুকৌশলে রাতের আধাঁরে লোকচক্ষুর অন্তরালে সুবিধাজনক ও বহনযোগ্য সাইজে রুপান্তর করে ঢাকা জেলা ও রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে কৌশলে বিক্রয় করে থাকে বলে স্বীকারোক্তি প্রদান করে। তাদের এই চুরির ফলে দেশের বিভিন্ন সরকারী/ বেসরকারী বিদ্যুৎ উৎপাদন ও বিপণনকারী প্রতিষ্ঠান তথা বিদ্যুৎশিল্প চরম ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে। উপরোক্ত বিষয়ে আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন। অদূর ভবিষ্যতে এরূপ সংঘবদ্ধ চোরাকারবারী দলের বিরুদ্ধে র‍্যাব-৪ এর জোড়ালো অভিযান অব্যাহত থাকবে।