ঢাকা ০৪:২১ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
প্রতারণার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী ও তার স্বামী রিমান্ডে শাহজালালে যৌথ অভিযানে ২ কেজি ১০৪ গ্রাম স্বর্ণ উদ্ধার, গ্রেফতার ৪ যাত্রী গোসাইরহাট উপজেলা পরিষদের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী জাতীয় যুব কাউন্সিলের সভাপতি:মাসুদ আলম ইয়াংছা উচ্চ বিদ্যালয়ে মহান আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত রামেবিতে যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন যুবলীগ নেতার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী গ্রেফতার! ৪ মামলায় সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামি’কে ঢাকা থেকে গ্রেফতার করেছে দাগনভূঁঞা থানা পুলিশ দূর্নীতিমুক্ত রিহ‍্যাব গড়তে চান আলিমুল্লাহ খোকন টিলাগাঁও আজিজুন নেছা উচ্চ বিদ্যালয়ের তৃতীয় বারের মত সভাপতি নির্বাচিত শামিম আহমদ ‘কমান্ডার খন্দকার আল মঈন এর ‘কিশোর গ্যাং-কীভাবে এলো, কীভাবে রুখবো’দুইটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন

শয়তানের নিশ্বাসের খপ্পরে ব্যবসায়ী,মালামালসহ প্রতারক’কে গ্রেফতার করলো যশোর পিবিআই

  • মাসুদ রানা
  • আপডেট সময় : ০২:৪৮:৩৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৪ অগাস্ট ২০২৩
  • ২১১৫ বার পড়া হয়েছে

যশোর জেলার মনিরামপুর থানাধীন ইত্যা সাকিনস্থ প্রদীপ ভট্টাচার্য (৩২) পেশায় একজন বালু ব্যবসায়ী। সে গত ১০ আগষ্ট ২০২৩ ইং
বেলা অনুমান ২.৩০ ঘটিকার সময় চালিতাতলা বাজারে মাছ ক্রয়ের জন্য যায়। সেখানে মাছ ক্রয়কালে আসামি আবু সাইদ শেখ এর সহিত ভিকটিমের পরিচয় হয়।

গত ১১ আগষ্ট ২০২৩ ইং তারিখ সকাল অনুমান ৬ ঘটিকার সময় চালিতাতলা গ্রামস্থ ভিকটিমের বোনের বাড়িতে হতে আবু সাইদ শেখ এর সাথে তার ব্যবহৃত মোটর সাইকেল যোগে যশোরের উদ্দেশ্যে রওনা করে। আসামি আবু সাইদ ভিকটিমকে যশোর কোতয়ালী থানাধীন সিংগিয়া রেলস্টেশন দেখার কথা বলে সিংগা রেললাইনের পাশে গিয়ে সকাল অনুমান ০৮:২৫ ঘটিকার সময় তার মোটর সাইকেল থামায় এবং ভিকটিমকে মোটর সাইকেল থেকে নামতে বলে।

তখন আসামি মোটর সাইকেল থেকে নেমে পাশের দোকান থেকে দুইটা জুস নিয়ে আসে। এরপর সে ভিকটিমকে নাকে ময়লা পড়েছে বলে তার নাকে ও মুখে হাত বুলায়। হাত বুলানোর পরপরই ভিকটিম বোধহীন হয়ে পড়ে। তখন আসামি ভিকটিমের একটি স্বর্ণেল আংটি যাহার ওজন অনুমান ৫ আনা মূল্য ৩১,০০০/- (একত্রিশ হাজার) টাকা খুলে নেয়, একটি স্বর্ণের চেইন যাহার ওজন অনুমান ৯আনা ২ রোতি, ৪পয়েট , মূল্য অনুমান ৬২,০০০/- (বাষট্টি হাজার)
টাকা এবং পকেট হতে তিনটি মোবাইল যথাঃ১(এক) টি
নোকিয়ার ব্রান্ডের বাটন মোবাইলসহ মূল্যবান সকল জিনিস
নিয়ে চলে যায়। পরবর্তীতে ভিকটিম দুপুর অনুমান ১২:৪০ ঘটিকার সময় সামান্য জ্ঞান ফিরলে বুঝতে পারে আসামি তাকে চেতনা নাশক ঔষধ ব্যবহারের মাধ্যমে অজ্ঞান করে ভিকটিমের কাছে থাকা উপরোক্ত মালামাল নিয়ে যায়।

উক্ত ঘটনা সংক্রান্তে ভিকটিম পিবিআই যশোর জেলা অফিসে এসে অভিযোগ দায়ের করলে পিবিআই, যশোর জেলা অত্র কার্যালয়ের জিডি নং-১৪২, গত ১৩ আগষ্ট ২০২৩ ইং মূলে ঘটনাস্থল পরিদর্শণসহ ছায়া তদন্ত কার্যক্রম শুরু করে। অনুসন্ধানকালে আসামী আবু সাইদ শেখ (৪০) উক্ত ঘটনার সহিত জড়িত মর্মে সত্যতা পাওয়া গেলে পিবিআই প্রধান বনজ কুমার মজুমদার বিপিএম (বার), পিপিএম, অ্যাডিশনাল আইজি, বাংলাদেশ পুলিশ এর সঠিক তত্তাবধান ও দিক নির্দেশনায়, পিবিআই যশোর জেলা ইউনিট ইনচার্জ পুলিশ সুপার রেশমা শারমিন, পিপিএম-সেবা এর নেতৃত্বে এসআই(নিঃ) রতন মিয়া, এসআই(নিঃ) মোঃ মনিরুল ইসলাম ও এসআই(নিঃ) রেজোয়ান সহ যশোর জেলার চৌকস দল তদন্তকালীন সময়ে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় চেতনা নাশক ঔষধ কথিত (শয়তানের নিশ্বাস) ব্যবহার করে ভিকটিমের নিকট থেকে স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোন, নগদ টাকা ছিনতাই চক্রের প্রধান আসামি আবু সাইদ শেখ (৪০)নড়াইলকে গত ইং ২২ আগষ্ট ২০২৩ বিকাল অনুমান ১৭:১৫ ঘটিকার সময় নড়াইল জেলার নড়াইল সদর থানাধীন গোবরা বাজার হইতে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকালে আসামির স্বীকারোক্তি মোতাবেক ভিকটিমের লুন্ঠিত স্বর্ণালংকার ও মোবাইল উদ্ধার করা হয়।

উক্ত ঘটনা সংক্রান্তে ভিকটিম প্রদীপ ভট্রাচার্য বাদী হয়ে আসামীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করলে যশোর কোতয়ালী মডেল থানার গত ২৩ আগষ্ট ২০২৩ ইং মামলা রুজু করে। মামলার তদন্তভার গ্রহণ করে তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই(নিঃ) রতন মিয়া ঘটনা সংক্রান্তে জড়িত আসামী আবু সাইদ শেখ (৪০) কে গ্রেফতার করা হয়।আসামিকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, ধৃত আসামি ঘটনার সাথে জড়িত মর্মে স্বীকার করলে অদ্য ২৩ আগষ্ট ২০২৩ ইং
খ্রিঃ বিজ্ঞ আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।ঘটনার সাথে জড়িত অন্য কোন আসামি আছে কিনা সে বিষয়ে তদন্ত অব্যহত আছে।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

প্রতারণার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী ও তার স্বামী রিমান্ডে

শয়তানের নিশ্বাসের খপ্পরে ব্যবসায়ী,মালামালসহ প্রতারক’কে গ্রেফতার করলো যশোর পিবিআই

আপডেট সময় : ০২:৪৮:৩৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৪ অগাস্ট ২০২৩

যশোর জেলার মনিরামপুর থানাধীন ইত্যা সাকিনস্থ প্রদীপ ভট্টাচার্য (৩২) পেশায় একজন বালু ব্যবসায়ী। সে গত ১০ আগষ্ট ২০২৩ ইং
বেলা অনুমান ২.৩০ ঘটিকার সময় চালিতাতলা বাজারে মাছ ক্রয়ের জন্য যায়। সেখানে মাছ ক্রয়কালে আসামি আবু সাইদ শেখ এর সহিত ভিকটিমের পরিচয় হয়।

গত ১১ আগষ্ট ২০২৩ ইং তারিখ সকাল অনুমান ৬ ঘটিকার সময় চালিতাতলা গ্রামস্থ ভিকটিমের বোনের বাড়িতে হতে আবু সাইদ শেখ এর সাথে তার ব্যবহৃত মোটর সাইকেল যোগে যশোরের উদ্দেশ্যে রওনা করে। আসামি আবু সাইদ ভিকটিমকে যশোর কোতয়ালী থানাধীন সিংগিয়া রেলস্টেশন দেখার কথা বলে সিংগা রেললাইনের পাশে গিয়ে সকাল অনুমান ০৮:২৫ ঘটিকার সময় তার মোটর সাইকেল থামায় এবং ভিকটিমকে মোটর সাইকেল থেকে নামতে বলে।

তখন আসামি মোটর সাইকেল থেকে নেমে পাশের দোকান থেকে দুইটা জুস নিয়ে আসে। এরপর সে ভিকটিমকে নাকে ময়লা পড়েছে বলে তার নাকে ও মুখে হাত বুলায়। হাত বুলানোর পরপরই ভিকটিম বোধহীন হয়ে পড়ে। তখন আসামি ভিকটিমের একটি স্বর্ণেল আংটি যাহার ওজন অনুমান ৫ আনা মূল্য ৩১,০০০/- (একত্রিশ হাজার) টাকা খুলে নেয়, একটি স্বর্ণের চেইন যাহার ওজন অনুমান ৯আনা ২ রোতি, ৪পয়েট , মূল্য অনুমান ৬২,০০০/- (বাষট্টি হাজার)
টাকা এবং পকেট হতে তিনটি মোবাইল যথাঃ১(এক) টি
নোকিয়ার ব্রান্ডের বাটন মোবাইলসহ মূল্যবান সকল জিনিস
নিয়ে চলে যায়। পরবর্তীতে ভিকটিম দুপুর অনুমান ১২:৪০ ঘটিকার সময় সামান্য জ্ঞান ফিরলে বুঝতে পারে আসামি তাকে চেতনা নাশক ঔষধ ব্যবহারের মাধ্যমে অজ্ঞান করে ভিকটিমের কাছে থাকা উপরোক্ত মালামাল নিয়ে যায়।

উক্ত ঘটনা সংক্রান্তে ভিকটিম পিবিআই যশোর জেলা অফিসে এসে অভিযোগ দায়ের করলে পিবিআই, যশোর জেলা অত্র কার্যালয়ের জিডি নং-১৪২, গত ১৩ আগষ্ট ২০২৩ ইং মূলে ঘটনাস্থল পরিদর্শণসহ ছায়া তদন্ত কার্যক্রম শুরু করে। অনুসন্ধানকালে আসামী আবু সাইদ শেখ (৪০) উক্ত ঘটনার সহিত জড়িত মর্মে সত্যতা পাওয়া গেলে পিবিআই প্রধান বনজ কুমার মজুমদার বিপিএম (বার), পিপিএম, অ্যাডিশনাল আইজি, বাংলাদেশ পুলিশ এর সঠিক তত্তাবধান ও দিক নির্দেশনায়, পিবিআই যশোর জেলা ইউনিট ইনচার্জ পুলিশ সুপার রেশমা শারমিন, পিপিএম-সেবা এর নেতৃত্বে এসআই(নিঃ) রতন মিয়া, এসআই(নিঃ) মোঃ মনিরুল ইসলাম ও এসআই(নিঃ) রেজোয়ান সহ যশোর জেলার চৌকস দল তদন্তকালীন সময়ে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় চেতনা নাশক ঔষধ কথিত (শয়তানের নিশ্বাস) ব্যবহার করে ভিকটিমের নিকট থেকে স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোন, নগদ টাকা ছিনতাই চক্রের প্রধান আসামি আবু সাইদ শেখ (৪০)নড়াইলকে গত ইং ২২ আগষ্ট ২০২৩ বিকাল অনুমান ১৭:১৫ ঘটিকার সময় নড়াইল জেলার নড়াইল সদর থানাধীন গোবরা বাজার হইতে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকালে আসামির স্বীকারোক্তি মোতাবেক ভিকটিমের লুন্ঠিত স্বর্ণালংকার ও মোবাইল উদ্ধার করা হয়।

উক্ত ঘটনা সংক্রান্তে ভিকটিম প্রদীপ ভট্রাচার্য বাদী হয়ে আসামীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করলে যশোর কোতয়ালী মডেল থানার গত ২৩ আগষ্ট ২০২৩ ইং মামলা রুজু করে। মামলার তদন্তভার গ্রহণ করে তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই(নিঃ) রতন মিয়া ঘটনা সংক্রান্তে জড়িত আসামী আবু সাইদ শেখ (৪০) কে গ্রেফতার করা হয়।আসামিকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, ধৃত আসামি ঘটনার সাথে জড়িত মর্মে স্বীকার করলে অদ্য ২৩ আগষ্ট ২০২৩ ইং
খ্রিঃ বিজ্ঞ আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।ঘটনার সাথে জড়িত অন্য কোন আসামি আছে কিনা সে বিষয়ে তদন্ত অব্যহত আছে।