ঢাকা ০২:০৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
প্রতারণার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী ও তার স্বামী রিমান্ডে শাহজালালে যৌথ অভিযানে ২ কেজি ১০৪ গ্রাম স্বর্ণ উদ্ধার, গ্রেফতার ৪ যাত্রী গোসাইরহাট উপজেলা পরিষদের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী জাতীয় যুব কাউন্সিলের সভাপতি:মাসুদ আলম ইয়াংছা উচ্চ বিদ্যালয়ে মহান আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত রামেবিতে যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন যুবলীগ নেতার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী গ্রেফতার! ৪ মামলায় সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামি’কে ঢাকা থেকে গ্রেফতার করেছে দাগনভূঁঞা থানা পুলিশ দূর্নীতিমুক্ত রিহ‍্যাব গড়তে চান আলিমুল্লাহ খোকন টিলাগাঁও আজিজুন নেছা উচ্চ বিদ্যালয়ের তৃতীয় বারের মত সভাপতি নির্বাচিত শামিম আহমদ ‘কমান্ডার খন্দকার আল মঈন এর ‘কিশোর গ্যাং-কীভাবে এলো, কীভাবে রুখবো’দুইটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন

সিআইপি আদম তমিজী হক এর ৪৭তম জম্মদিন পালন

  • আপডেট সময় : ০২:০০:৪১ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৩০ ডিসেম্বর ২০২২
  • ২২৫১ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ মানবিক বাংলাদেশ সোসাইটি কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান মানবিক বন্ধু, আদম তমিজি হকের ৪৭ তম শুভ জন্মদিন আজ।

ব্যারিস্টার তমিজুল হকের ছেলে আদম তামিজী হক ১৯৭৬ সালের ২৯ ডিসেম্বর জন্মগ্রহণ করেন। তিনি স্কুলজীবনে ইংল্যান্ডের বোর্ডিং স্কুলে কাটিয়েছি। ১৬ বছর বয়সে তিনি বোর্ডিং স্কুল ছেড়ে লন্ডনের একটি টিউটোরিয়াল কলেজে চলে যান। তানজানিয়ার জাঞ্জিবারে অল্প কিছুদিন থাকার পরে, আদম উত্তর ইংল্যান্ডের হাডারসফিল্ডে চলে যান এবং হাডারসফিল্ডের হিলটন হোটেলে কাজ করার আগে ক্যাটারিংয়ের একটি কোর্স করেন। 

আদম তমিজী হক যুক্তরাজ্যের মিডলসেক্স বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন। তিনি ১৮ বছর বয়স থেকে হক গ্রুপের পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন, তবে ২০০২ সালে শুরু করার পরে তিনি শুধুমাত্র ড্রাইসেল এবং সাবানের ব্যবসায় যুক্ত ছিলেন এবং কেবল ২০১১ সালে ম্যানেজিং ডিরেক্টর হওয়ার পরে নিজেকে বিস্কুটের সঙ্গে জড়িত করেছেন। 

আদম তামিজী এখন বাংলাদেশে বসবাস করছেন, মানবাধিকার এবং সমাজের জন্য কাজ করছেন। তিনি ২০১৭ সালে রাজনীতিতে যোগদান করেন, বর্তমানে বাংলাদেশ সরকারের তত্ত্বাবধানে অনেক প্রকল্পে কাজ করছেন। বিদেশি বাণিজ্য ও দেশীয় ব্যবসায়ের প্রসারের মাধ্যমে হক গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজ ৫০ হাজারেরও বেশি কর্মকর্তা, কর্মচারী এবং শ্রমিকদের নিযুক্ত করেছেন। ব্যবসায়ী হিসেবে তিনি দেশের রাজস্ব খাতে উল্লেখযোগ্য অবদান রেখেছেন।

আদম তামিজী হক (জন্মঃ ২৯ ডিসেম্বর, ১৯৭৬) একজন বাংলাদেশি শিল্পপতি, ব্যবসায়ী, এবং সমাজসেবক। তিনি এ. টি. হক লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক, মানবিক বাংলাদেশ সোসাইটির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান এবং একজন বাণিজ্যিকভাবে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি।

সুদূর ইংল্যান্ডে পড়াশোনা করার সময়ও তার হৃদয় বাংলাদেশেই ছিল। তার হৃদয় সর্বদা দেশের সুবিধাবঞ্চিত মানুষের জন্য কাঁদে। স্বপ্ন ছিল বাংলাদেশে এসে সৎ ও সাহসের সঙ্গে দেশ ও দেশবাসীর পক্ষে কাজ করা। তিনি যেকোনো দুর্যোগে আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে মোকাবিলায় সব ধরনের লোকের সঙ্গে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে প্রস্তুত। পারিবারিকভাবে সুযোগপ্রাপ্ত হওয়ায় তিনি তার সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন। তিনি শিক্ষা-প্রতিষ্ঠান ও রাস্তাঘাটের উন্নয়নে মানুষের পাশে ছিলেন।  

শৈশবকাল থেকেই তিনি ক্রমাগত বঙ্গবন্ধুর আদর্শ, দিকনির্দেশ এবং বক্তৃতায় অনুপ্রাণিত হয়েছিলেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার নেতা ও রাজনৈতিক আদর্শ। রাজনৈতিক কর্মকাণ্ডে সরাসরি অংশ নেওয়ার আগে তিনি বঙ্গবন্ধু আদর্শের রাজনৈতিক নেতাকর্মী ও সাধারণ মানুষের সঙ্গে জড়িত ছিলেন। তার সংগঠন ‘মনোবিক বাংলাদেশ সোসাইটি’ নগরীর প্রতিটি এলাকায় কাজ করছে। এর শাখা পুরো ঢাকাজুড়ে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এছাড়াও সমগ্র বাংলাদেশে এর শাখা প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।

আদম তমিজী হক সিআইপি দারিদ্র্যমুক্ত সমাজ গঠনে প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছেন ।সুধু তাই নয় বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে অনুপ্রাণিত হয়ে আদম তমিজী হক দারিদ্র্যমুক্ত সমাজ গঠনের স্বপ্নকে লালন করেছিলেন। এ তরুণ শিল্পপতি মনে করেন যে ১৮০ মিলিয়ন মানুষের মৌলিক চাহিদা মেটাতে বাংলাদেশের সম্পদ রয়েছে; তবে সবার লোভকে সন্তুষ্ট করার পক্ষে তা যথেষ্ট নয়।

আদম তমিজী হক কেবল ব্যবসায়ী ও শিল্পপতিই নন, তিনি সামাজিক ও নাগরিক দায়বদ্ধ ইতিবাচক পরিবর্তনের স্বপ্নদ্রষ্টাও বটে। ফলস্বরূপ, ব্যবসা সম্প্রসারণের পাশাপাশি প্রতিষ্ঠানটি পরিবেশ রক্ষা এবং রাজধানীকে একটি বাসযোগ্য শহর হিসেবে গড়ে তোলার স্বপ্নকে লালন করেছে।আদম তমিজী হক দরিদ্রদের মধ্যে উদার সমাজসেবী হিসেবে সুপরিচিত।

আদম তমিজী হক এমন একটি সমাজ গঠনে লড়াই করে যাচ্ছেন যেখানে দারিদ্র্যের অভিশাপ কেউ ভোগ করবে না।
তিনি বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে হৃদয়ে ধারণ করে, বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার মনোবল হিসেবে কাজ করে মানবিক বাংলাদেশ গড়ার মনস্থির করেন। কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্য অর্জনের জন্য আদম তমিজী হক মানবিক বাংলাদেশ নামে একটি সংস্থা গঠন করেছেন। এ দাতব্য প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে তিনি অসহায় শিশুদের পড়াশোনা, চিকিৎসা ও শ্রমিকদের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নে অবদান রাখেন নূরউদ্দিন রানা।

আদম তমিজী হক একজন প্রতিভাবান এবং সফল ব্যক্তিত্ব যিনি সাফল্য এবং কৃতিত্বের সিঁড়িতে উঠে এসেছেন। ২০১০ সালে তিনি হক গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন এবং হক গ্রুপকে বাংলাদেশের অন্যতম এফএমসিজি সংস্থা হিসেবে প্রতিষ্ঠা করেন।৪৭তম জম্মদিনে দেশবাসীসহ সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন তিনি।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

প্রতারণার মামলায় যুব-মহিলালীগ নেত্রী ও তার স্বামী রিমান্ডে

সিআইপি আদম তমিজী হক এর ৪৭তম জম্মদিন পালন

আপডেট সময় : ০২:০০:৪১ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৩০ ডিসেম্বর ২০২২

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ মানবিক বাংলাদেশ সোসাইটি কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান মানবিক বন্ধু, আদম তমিজি হকের ৪৭ তম শুভ জন্মদিন আজ।

ব্যারিস্টার তমিজুল হকের ছেলে আদম তামিজী হক ১৯৭৬ সালের ২৯ ডিসেম্বর জন্মগ্রহণ করেন। তিনি স্কুলজীবনে ইংল্যান্ডের বোর্ডিং স্কুলে কাটিয়েছি। ১৬ বছর বয়সে তিনি বোর্ডিং স্কুল ছেড়ে লন্ডনের একটি টিউটোরিয়াল কলেজে চলে যান। তানজানিয়ার জাঞ্জিবারে অল্প কিছুদিন থাকার পরে, আদম উত্তর ইংল্যান্ডের হাডারসফিল্ডে চলে যান এবং হাডারসফিল্ডের হিলটন হোটেলে কাজ করার আগে ক্যাটারিংয়ের একটি কোর্স করেন। 

আদম তমিজী হক যুক্তরাজ্যের মিডলসেক্স বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন। তিনি ১৮ বছর বয়স থেকে হক গ্রুপের পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন, তবে ২০০২ সালে শুরু করার পরে তিনি শুধুমাত্র ড্রাইসেল এবং সাবানের ব্যবসায় যুক্ত ছিলেন এবং কেবল ২০১১ সালে ম্যানেজিং ডিরেক্টর হওয়ার পরে নিজেকে বিস্কুটের সঙ্গে জড়িত করেছেন। 

আদম তামিজী এখন বাংলাদেশে বসবাস করছেন, মানবাধিকার এবং সমাজের জন্য কাজ করছেন। তিনি ২০১৭ সালে রাজনীতিতে যোগদান করেন, বর্তমানে বাংলাদেশ সরকারের তত্ত্বাবধানে অনেক প্রকল্পে কাজ করছেন। বিদেশি বাণিজ্য ও দেশীয় ব্যবসায়ের প্রসারের মাধ্যমে হক গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজ ৫০ হাজারেরও বেশি কর্মকর্তা, কর্মচারী এবং শ্রমিকদের নিযুক্ত করেছেন। ব্যবসায়ী হিসেবে তিনি দেশের রাজস্ব খাতে উল্লেখযোগ্য অবদান রেখেছেন।

আদম তামিজী হক (জন্মঃ ২৯ ডিসেম্বর, ১৯৭৬) একজন বাংলাদেশি শিল্পপতি, ব্যবসায়ী, এবং সমাজসেবক। তিনি এ. টি. হক লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক, মানবিক বাংলাদেশ সোসাইটির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান এবং একজন বাণিজ্যিকভাবে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি।

সুদূর ইংল্যান্ডে পড়াশোনা করার সময়ও তার হৃদয় বাংলাদেশেই ছিল। তার হৃদয় সর্বদা দেশের সুবিধাবঞ্চিত মানুষের জন্য কাঁদে। স্বপ্ন ছিল বাংলাদেশে এসে সৎ ও সাহসের সঙ্গে দেশ ও দেশবাসীর পক্ষে কাজ করা। তিনি যেকোনো দুর্যোগে আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে মোকাবিলায় সব ধরনের লোকের সঙ্গে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে প্রস্তুত। পারিবারিকভাবে সুযোগপ্রাপ্ত হওয়ায় তিনি তার সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন। তিনি শিক্ষা-প্রতিষ্ঠান ও রাস্তাঘাটের উন্নয়নে মানুষের পাশে ছিলেন।  

শৈশবকাল থেকেই তিনি ক্রমাগত বঙ্গবন্ধুর আদর্শ, দিকনির্দেশ এবং বক্তৃতায় অনুপ্রাণিত হয়েছিলেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার নেতা ও রাজনৈতিক আদর্শ। রাজনৈতিক কর্মকাণ্ডে সরাসরি অংশ নেওয়ার আগে তিনি বঙ্গবন্ধু আদর্শের রাজনৈতিক নেতাকর্মী ও সাধারণ মানুষের সঙ্গে জড়িত ছিলেন। তার সংগঠন ‘মনোবিক বাংলাদেশ সোসাইটি’ নগরীর প্রতিটি এলাকায় কাজ করছে। এর শাখা পুরো ঢাকাজুড়ে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এছাড়াও সমগ্র বাংলাদেশে এর শাখা প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।

আদম তমিজী হক সিআইপি দারিদ্র্যমুক্ত সমাজ গঠনে প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছেন ।সুধু তাই নয় বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে অনুপ্রাণিত হয়ে আদম তমিজী হক দারিদ্র্যমুক্ত সমাজ গঠনের স্বপ্নকে লালন করেছিলেন। এ তরুণ শিল্পপতি মনে করেন যে ১৮০ মিলিয়ন মানুষের মৌলিক চাহিদা মেটাতে বাংলাদেশের সম্পদ রয়েছে; তবে সবার লোভকে সন্তুষ্ট করার পক্ষে তা যথেষ্ট নয়।

আদম তমিজী হক কেবল ব্যবসায়ী ও শিল্পপতিই নন, তিনি সামাজিক ও নাগরিক দায়বদ্ধ ইতিবাচক পরিবর্তনের স্বপ্নদ্রষ্টাও বটে। ফলস্বরূপ, ব্যবসা সম্প্রসারণের পাশাপাশি প্রতিষ্ঠানটি পরিবেশ রক্ষা এবং রাজধানীকে একটি বাসযোগ্য শহর হিসেবে গড়ে তোলার স্বপ্নকে লালন করেছে।আদম তমিজী হক দরিদ্রদের মধ্যে উদার সমাজসেবী হিসেবে সুপরিচিত।

আদম তমিজী হক এমন একটি সমাজ গঠনে লড়াই করে যাচ্ছেন যেখানে দারিদ্র্যের অভিশাপ কেউ ভোগ করবে না।
তিনি বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে হৃদয়ে ধারণ করে, বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার মনোবল হিসেবে কাজ করে মানবিক বাংলাদেশ গড়ার মনস্থির করেন। কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্য অর্জনের জন্য আদম তমিজী হক মানবিক বাংলাদেশ নামে একটি সংস্থা গঠন করেছেন। এ দাতব্য প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে তিনি অসহায় শিশুদের পড়াশোনা, চিকিৎসা ও শ্রমিকদের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নে অবদান রাখেন নূরউদ্দিন রানা।

আদম তমিজী হক একজন প্রতিভাবান এবং সফল ব্যক্তিত্ব যিনি সাফল্য এবং কৃতিত্বের সিঁড়িতে উঠে এসেছেন। ২০১০ সালে তিনি হক গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন এবং হক গ্রুপকে বাংলাদেশের অন্যতম এফএমসিজি সংস্থা হিসেবে প্রতিষ্ঠা করেন।৪৭তম জম্মদিনে দেশবাসীসহ সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন তিনি।